বঙ্গবন্ধু হত‌্যাকাণ্ডের পরই দেশের উন্নয়ন কর্মকাণ্ড থেমে যায়: প্রধানমন্ত্রী

সিলেটভিউ টুয়েন্টিফোর ডটকম, ২০১৭-০১-১০ ১৭:২৪:৪২

সিলেটভিউ ডেস্ক ::  অবৈধ উপায়ে ক্ষমতা দখল করে জিয়াউর রহমান শুধু সংবিধানই লংঘন করেনি। ৭৫ এর পর হত্যা, ষড়যন্ত্রের মাধ্যমে দিনের পর দিন, রাতের পর রাত কারফিউ জারি করে ক্ষমতা দখল করে রেখেছিল। মেধাবি ছাত্রদের হাতে অস্ত্র আর অর্থ তুলে দিয়ে দেশকে পিছিয়ে নিয়েছিল। সেনাবাহিনীর মধ্যে ১৯টি ব্যর্থ অভ্যুন্থান ঘটিয়ে ক্ষমতার মাধ্যমে জিয়াউর রহমান নিজের অভিলাষ পূরণ করেছেন। তার আমলে দেশে কোনো স্বাধীনতাই ছিল না।

বঙ্গবন্ধুর স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস উপলক্ষ্যে মঙ্গলবার বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ আয়োজিত এক সমাবেশে এসব কথা বলেন প্রধানমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগ সভানেত্রী শেখ হাসিনা।

বক্তব্যের শুরুতে তিনি বলেন, আজকে ঐতিহাসিক দিন। ১০ জানুয়ারি বাঙালির ইতিহাসে অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ দিন। দীর্ঘ ২৪ বছরের সংগ্রাম ও নয় মাসের যুদ্ধে বঙ্গবন্ধুর নেতৃত্বে আমরা বিজয় অর্জন করেছি। জাতির পিতার ডাকে সাড়া দিয়ে অস্ত্র হাতে তুলে নিয়ে বাংলাদেশকে স্বাধীন করেছিল।

শেখ হাসিনা আরো বলেন, পাকিস্তানের শাসক ইয়াহিয়া খান জাতির পিতাকে ফাঁসিতে ঝুলিয়ে মারতে চেয়েছিল। বিশ্ব নেতাদের চাপ আর বাংলার মানুষের দোয়াতে তিনি ফিরে এসেছিলেন আমাদের মাঝে। আজকের এই দিনে প্রিয় বাংলার মাটিতে ফিরেই তিনি এসেছিলেন সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে। সেখানে তিনি বলেছিলেন, সদ্য স্বাধীন হওয়া একটা দেশ কিভাবে পরিচালিত হবে।

তিনি আরো বলেন, আমরা অপেক্ষায় ছিলাম, আমার মা অপেক্ষায় ছিলেন। বাংলাদেশ ১৬ ডিসেম্বর বিজয় অর্জন করলেও আমরা মুক্ত হয়েছিলাম ১৭ ডিসেম্বর। ধানন্ডির ৩২ নম্বরে মাসহ আমরা পরিবারের সবাই অপেক্ষায় ছিলাম তিনি কখন বাসায় ফিরবেন।

প্রধানমন্ত্রী আরো বলেন, কিন্তু ১৫ আগস্টের কালো রাতে এদেশের কিছু কুলাঙ্গার জাতির পিতাকে পরিবারসহ হত্যা করে। আমরা দুই বোন দেশের বাইরে থাকায় বেঁচে যাই। দেশের উন্নয়নকে ব্যাহত করতেই এই হত্যাকাণ্ড ঘটিয়েছিল। বঙ্গবন্ধু হত্যার মাধ্যমে দেশকে অর্থনৈতিকভাবে ২৫-৩০ বছর পিছিয়ে দেয়া হয়েছে বলে দাবি করেন শেখ হাসিনা।

সিলেটভিউ২৪ডটকম/১০ জানুয়ারি ২০১৭/ডেস্ক/এসডি

সংবাদটি পড়া হয়েছে মোট : ১৬২ বার

শেয়ার করুন

আপনার মতামত দিন

সর্বশেষ খবর

  •   নিহত লিটুর পরিবারের পাশে হুইপ সেলিম উদ্দিন
  •   রাগীব আলী ও তার ছেলের জামিন হয়নি
  •   'মফিজ উদ্দীন চৌধুরী দাখিল মাদরাসা সারাদেশের জন্য অনুকরণীয়'
  •   '২৪ঘণ্টার মধ্যে পূর্ণাঙ্গ কমিটি পাচ্ছে হবিগঞ্জ জেলা ছাত্রলীগ'
  •   গণিপুর বয়েজ ক্লাবের সভা অনুষ্টিত
  •   ছোটকাগজ 'শীতলপাটি'র বর্ষপূর্তি ও ঈদ সংখ্যার পাঠ উন্মোচন
  •   কিছুটা সুস্থ বাউল আব্দুর রহমান দর্পন থিয়েটারে
  •   ছাতক ডিগ্রি কলেজে ছাত্রলীগ-ছাত্রদল সংঘর্ষে আহত ৫
  •   বিয়ানীবাজারের আলীনগরে দু'গ্রামবাসীর সংঘর্ষ, আহত ১২
  •   নদী অলিম্পিয়াড প্রতিযোগীতায় চ্যাম্পিয়ন শাবিপ্রবি
  •   সিলেটে মালিক শ্রমিকদের পরিবহণ ধর্মঘট স্থগিত
  •   ‘শফিক চৌধুরীর নেতৃত্বে বিশ্বনাথে যুবলীগ ঐক্যবদ্ধ’
  •   বাংলাদেশ পোস্টম্যান ও ডাক কর্মচারী ইউনিয়নের বিদায়ী সংবর্ধনা
  •   ইউএসও'র পূর্ণাঙ্গ কমিটি ঘোষণা
  •   দক্ষিণ সুরমা কলেজ বার্ষিকী দখিনা’র প্রকাশনা উৎসব
  • সাম্প্রতিক জাতীয় খবর

  •   মেহেরপুরে ‘জঙ্গি আস্তানায়’ পুলিশের অভিযানে
  •   আমাদের এতিম দুই বোনের জন্য দোয়া করবেন: প্রধানমন্ত্রী
  •   ইসলামের নামে নিরীহ মানুষ হত্যা সহ্য করা হবে না: প্রধানমন্ত্রী
  •   গণমাধ্যমের প্রতি কৃতজ্ঞ ইউএনও সালমান
  •   এক বছরের মধ্যে সাড়ে ১৯ হাজার স্কুলভবন নির্মাণের ঘোষণা শিক্ষামন্ত্রীর
  •   ইউএনওর বিরুদ্ধে মামলাকারী সাজুকে আ. লীগ থেকে বহিষ্কার
  •   ইউএনও সালমানের বিরুদ্ধে সেই মামলা প্রত্যাহারের চিন্তা
  •   ইউএনও গ্রেপ্তারের ঘটনায় প্রধানমন্ত্রীর নিন্দা
  •   সীতাকুণ্ডে পাহাড় ধসে একই পরিবারের ৫ জন নিহত
  •   'চুরি করতে গিয়ে ধর্ষণের পর পারুলকে হত্যা করা হয়'
  •   শ্যামলীর হোটেলে ধর্ষণের শিকার সেই তরুণী মারা গেছেন
  •   সংসদ ভবন লেকে মাছ ধরায় আয় কোটি টাকা
  •   সেই ছবির জন্য শিশুকে পুরস্কারও দেন আ. লীগ নেতা
  •   শাহবাগে শিক্ষার্থী-পুলিশ সংঘর্ষ
  •   ‘আওয়ামী লীগ ক্ষমতায় আসলে বাংলাদেশ আন্তর্জাতিকভাবে পুরস্কৃত হয়’