ঈদের খাবার হোক কোলেস্টেরলমুক্ত

সিলেটভিউ টুয়েন্টিফোর ডটকম, ২০১৭-০৬-২০ ০১:০৫:৩১

ঈদের সময় খাবার নিয়ে যথেষ্ট সচেতন হতে হবে। বিশেষ করে হৃদরোগীদের এ বিষয়ে একটু বেশি যত্নবান হতে হবে। কারণ এ সময় খাবারে কোলেষ্টেরলের উপস্থিতি থাকে মাত্রাতিরিক্ত। লিভারে উৎপন্ন কোলেস্টেরল রক্তের মাধ্যমে দেহের বিভিন্ন অঙ্গে সরবরাহ হয়ে থাকে।

দেখা গেছে, রক্তে কোলেস্টেরলের মাত্রার বৃদ্ধি ঘটলে সারা দেহের রক্তনালিতে স্থানে স্থানে স্তূপাকারে কোলেস্টেরল জমা হতে থাকে। এসব স্তূপকে অ্যাথেরোমা এবং জমা হওয়ার পদ্ধতিকে অ্যাথেরোসক্লেরোসিস বলা হয়। অ্যাথেরোমাকে সাধারণ ভাষায় প্ল্যাক বলা হয়। যার ফলে রক্তনালিতে ব্লক সৃষ্টি হয়। সুতরাং হার্ট ব্লকের জন্য রক্তের উচ্চমাত্রার কোলেস্টেরলকে দায়ী করা হয়ে থাকে। কিন্তু ঈদের খাবার মুখরোচক করতে গিয়ে নানা রকম ঘি ও মসলা ব্যবহার করা হয়। আর এতেই খাবারে কোলেস্টেরলের মাত্রা কয়েকগুণ বেড়ে যায়।

লিভার বা কলিজা কোলেস্টেরল উৎপন্ন করে থাকে। হজম প্রক্রিয়া ব্যবহারের জন্য পিত্তরস তৈরিতে কোলেস্টেরল কাঁচামাল হিসেবে ব্যবহৃত হয় বিধায় লিভার পিত্তরস তৈরির জন্য কোলেস্টেরল উৎপাদন করে থাকে। উৎপাদিত কোলেস্টেরলের কিছু অংশ দেহের বিভিন্ন অঙ্গের প্রয়োজন মেটাতে, লিভার রক্তের মাধ্যমে বিভিন্ন অঙ্গে কোলেস্টেরল সরবরাহ করে থাকে। প্রাণিজ খাদ্যের মাধ্যমে মানুষ কোলেস্টেরল গ্রহণ করে থাকে যা হজম শেষে রক্তে প্রবেশ করে বিভিন্ন অঙ্গে সরবরাহ হয়ে থাকে। কোলেস্টেরলকে বেশ কয়টি ভাগে ভাগ করা হয়। যাদের লিপিড নামেও অভিহিত করা হয়ে থাকে। যেমন—Total Cholesterol (TC) যার মাত্রা বৃদ্ধির সঙ্গে হৃদরোগে আক্রান্ত হওয়ার হার অনেক বেশি। Low density lipoprotein (LDL) যাকে সবচেয়ে ক্ষতিকারক কোলেস্টেরল হিসেবে বিবেচনা করা হয়। High density lipoprotein (HDL) এর মাত্রা বেশি থাকলে হৃদরোগ ও স্ট্রোকের ঝুঁকি হ্রাস পায় বলে একে বন্ধু কোলেস্টেরল বলা হয়। Triglyceride (TG) যা চর্বি জাতীয় খাদ্যে সবচেয়ে বেশি পরিমাণে বিদ্যমান থাকে। রক্তে এর মাত্রার কিছুটা বৃদ্ধি ঘটলেও কোনো সমস্যা হয় না। তবে অত্যধিক পরিমাণে বৃদ্ধি ঘটলে হৃদরোগ ও স্ট্রোকের ঝুঁকি বৃদ্ধি পায়। TC-এর স্বাভাবিক মাত্রা 200mg/dl-এর নিচে। 200mg/dl থেকে 250mg/dl পর্যন্ত মাত্রাকে ঐরময এবং 250mg /dl এর বেশি থাকলে তাকে ঠবৎু যরময বলে বিবেচনা করা হয়। LDL এর মাত্রা ১৫০সম/ফষ অথবা তার নিচে থাকা বাঞ্ছনীয়। যারা হৃদরোগে আক্রান্ত হয়েছেন তাদের ক্ষেত্রে মাত্রা 100mg/dl এর নিচে রাখাই উত্তম। HDL-এর মাত্রা পুরুষদের ক্ষেত্রে 40mg/dl এবং মহিলাদের 50mg/dl এর উপরে থাকা বাঞ্ছনীয়। তাই ঈদের খাবার নিয়ে আমাদের আরও সচেতন হতে হবে।

ডা. এম শমশের আলী, সিনিয়র কনসালটেন্ট (কার্ডিওলজি) ঢাকা মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতাল,
কনসালটেন্ট, শমশের হার্ট কেয়ার এবং মুন
ডায়াগনস্টিক সেন্টার, শ্যামলী, ঢাকা।

শেয়ার করুন

আপনার মতামত দিন

সর্বশেষ খবর

  •   কক্সবাজারের উখিয়ায় ছুরিকাঘাতে নিহত এক রোহিঙ্গা
  •   ওসমানী মেডিকেলের হিমঘরে নাসরিন
  •   এখনো হিমঘরে সিলেটের সেই ‘প্রেমিক-প্রেমিকার’ লাশ
  •   মির্জা ফখরুলের অনুকরণীয় দৃষ্টান্ত!
  •   ইতালি প্রবাসী জাহাঙ্গীর বাবলু নিখোঁজের প্রতিবাদে দুবাইয়ে সভা
  •   ফ্রান্সে আওয়ামী লীগ নেতার মেয়ে প্রথম বাঙালি কাউন্সিলর নির্বাচিত
  •   চ্যানেল আই সেরাকণ্ঠ চ্যাম্পিয়ান হাওরকন্যা ঐশী
  •   প্রধানমন্ত্রীর জনসভা সফলে ফেঞ্চুগঞ্জ যুবলীগের সভা
  •   বার্সার বড় জয় মেসি-সুয়ারেসের জোড়া গোলে
  •   ‘শিলং তীর জুয়া’র গডফাদারদের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা গ্রহণের দাবি
  •   নেত্রকোণায় বাসচাপায় ২ অটোযাত্রী নিহত
  •   সরকার সেবামূলক প্রতিষ্ঠানগুলোকে ঢেলে সাজ্জাচ্ছে : মাহমুদ উস সামাদ এমপি
  •   যুব সংগঠক হিমেল আহমদের পিতৃ বিয়োগ: জেলা বিএনপির শোক
  •   দিরাইয়ের মন্ডপগুলো প্রস্তুত: আজ সরস্বতী পুজা
  •   দক্ষিণ সুরমায় বাস-ট্রাক সংঘর্ষে নিহত ৪
  • সাম্প্রতিক জীবন ধারা খবর

  •   স্ত্রীর মুখ থেকে যে ৫টি কথা শুনতে চান স্বামী!
  •   বিবাহ বিচ্ছেদের সম্ভবনা আছে যেসব পেশায়
  •   আপনার অতিরিক্ত মেদ কমছে না যেসব কারণে
  •   রক্ত পরীক্ষায় খুব সহজেই ক্যান্সার শনাক্ত!
  •   প্রতিদিন ৩০ মিনিট হাঁটার উপকারিতা জানেন?
  •   হাসিতে ঝরবে পেটের অতিরিক্ত চর্বি
  •   স্মার্ট ব্যক্তির ১৩ লক্ষণ
  •   যে বয়সে পুরুষরা হয়ে উঠে সবচেয়ে বেশি বিরক্তিকর!
  •   মাছ খেলে বুদ্ধি বাড়ে!
  •   টিভির নেশা সিগারেটের মতোই ক্ষতিকর!
  •   রান্না ছাড়াও যেসব কাজে ব্যবহৃত হয় তেজপাতা
  •   অল্প মেধা নিয়েও যেভাবে পৌঁছাতে পারেন সফলতার শীর্ষে!
  •   শীতে চুলের যত্নে জেনে নিন
  •   যে ৭টি কারণে বালিশ ছাড়া ঘুমানো উচিত
  •   ঘুমের মধ্যে কথা বলা ভয়ানক বিপদের লক্ষণ