নারীদের নৃশংসভাবে ধর্ষণ করা হতো 'ক্যাম্প-২২'-এ!

সিলেটভিউ টুয়েন্টিফোর ডটকম, ২০১৭-০৬-১৯ ০০:৩৬:৫৪

উত্তর কোরিয়ার Haengyong Concentration Camp কে ক্যাম্প-২২ বলা হত। পৃথিবীর নিশংসতম জায়গাগুলোর তালিকায় ক্যাম্প-২২ এ মানুষকে কখনোই মানুষ বলে মনে করা হতো না। এখানে অভুক্ত শিশুরা খাবারের জন্য প্রহরীর লাথি খেয়ে মারা পড়ত। নারীদের নৃশংসভাবে ধর্ষণ ও নির্যাতন করে মেরে ফেলে হত। এখানে প্রসূতি নারীদের সরাসরি পেট কেটে ভ্রূণ বের করে ফেলা হতো। বড় তক্তা দিয়ে পিষে পিষে গর্ভপাত করানো হতো ৮-৯ মাসের প্রসূতিকে ! এখানে রাজনৈতিক সমালোচনা বা রাজনৈতিক ‘অপরাধী’কে মৃত্যুর মুখে ঠেলে দেয়া হতো। 

২০১২ সালে আর্ন্তজাতিক গণম্যাধম এর নজরে আসে যখন এর একজন রক্ষি চীনে পালিয়ে যায়। রাজনৈতিক বন্দিদের এখানে এনে এখানে রাখা হয়, এমনি কি তিন পুরুয ধরে পর্যায়ক্রমে পরিবারের সদস্যদের এখানে ধরে আনা হয় যাতে আন্দোলনের শিকর উপরে ফেলা যায়। উত্তর কোরিয়ার উত্তর পূর্ব সীমান্তে হোয়ের ইয়ং কাউন্টিতে ২২৫ বর্গ কিলোমিটার এলাকা জুড়ে এই নরকের অবস্থান ছিলো। চারদিকে পাহাড়ে ঘেরা এই ক্যাম্প ১০ ফুট চওড়া ৩,৩০০ ভোল্টের বৈদ্যুতিক বেড়া দিয়ে আবৃত। কঠোর নিরাপত্তা এবং ক্যাম্প পরিচালনার জন্য প্রায় ১,০০০ অস্ত্রশস্ত্রে সজ্জিত এবং প্রশিক্ষিত কুকুরসহ পাহারাদার এবং ৫০০–৬০০ কর্মকর্তা ছিলো। কিছুদূর পর পর ল্যান্ড মাইন এবং মানুষ মারার গোপন ফাঁদ ছিল এখানে। প্রায় ৫০ হাজার নারী পুরুষ ও শিশুবন্দী ছিল বলে জানা যায়। 

ক্যাম্প-২২ নিয়ে ব্যাপক গবেষণা করেন ডেভিড হক নামে এক মানবাধিকার গবেষক। তিনি ক্যাম্পের কিছু সাবেক পাহারাদার এবং পালিয়ে আসা বন্দিদের কাছ থেকে বেশ কিছু সাক্ষাৎকার নেন। সাধারণত বহির্বিশ্বের মানুষ এই ক্যাম্পগুলোর কর্মকাণ্ড সম্পর্কে জানতে পেরেছে তাদের কাছ থেকে- যারা একসময় এই ক্যাম্প-২২ এর কর্মী হিসেবে ছিলেন। অথবা যারা পালিয়ে এসেছেন। জানা যায়, এসব ক্যাম্পের বন্দীদের দিয়ে চাষবাস থেকে শুরু করে কারখানার কাজও করানো হয়। উত্তর কোরিয়ার অর্থনীতির একটা বিশাল অংশ জুড়ে রয়েছে এই ক্যাম্পগুলোর শিল্পোৎপাদন। এরকম ভয়াবহ নরক উত্তর কোরিয়ায় আরো রয়েছে।

শেয়ার করুন

আপনার মতামত দিন

সর্বশেষ খবর

  •   জুড়ীতে জুয়ার আসরে বাঁধা দেয়ায় পুলিশের উপর হামলা: আটক ৭
  •   মৌলভীবাজারে ১৭৫টি কমিউনিটি ক্লিনিক বন্ধ: সেবা থেকে বঞ্চিত ১০ সহস্ররাধিক মানুষ
  •   মুক্তিযোদ্ধা সংসদ সন্তান কমান্ডের আনন্দ র‌্যালী বৃহস্পতিবার
  •   কমলগঞ্জে প্রাণীসম্পদ সেবা সপ্তাহ পালিত
  •   ৬ হাজার রানের মাইলফলক স্পর্শ তামিমের
  •   সিলেটে প্রাণিসম্পদ সেবা সপ্তাহ উদযাপন
  •   চাকুরী জাতীয়করণের দাবিতে সিএইচসিপি এসোসিয়েশনের কর্মসূচী পালন
  •   সরকার তৃণমূল মানুষের উন্নয়নে আন্তরিক : ড. এ কে মোমেন
  •   হবিগঞ্জে একই রাতে ৪ ব্যবসাপ্রতিষ্ঠানে চুরি
  •   চুনারুঘাটে র‌্যাবের সাথে ডাকাতদলের‘বন্দুকযুদ্ধ’: গুলিবিদ্ধ ৩
  •   শ্রুতি পিঠা উৎসবের যুগপূর্তি ২৮ জানুয়ারি
  •   সড়ক দুর্ঘটনায় ৫ মুসল্লির মৃত্যুতে নিসচা’র শোক
  •   ঢাবি উপাচার্যের কার্যালয় ঘেরাও করেছে শিক্ষার্থীরা
  •   জগন্নাথপুর থেকে পাইপগানসহ ২ অস্ত্র ব্যবসায়ী গ্রেফতার
  •   কোকো’র মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে মহানগর বিএনপির দোয়া মাহফিল বুধবার
  • সাম্প্রতিক আন্তর্জাতিক খবর

  •   ট্রাম্পকে গুরু মানেন যে প্রধানমন্ত্রী!
  •   ১ শতাংশ শীর্ষধনীর হাতেই বিশ্বের ৮২ ভাগ সম্পদ!
  •   বিমান সেবিকারা ঝুঁকলেই ক্লিভেজ দেখা যায়, যাত্রীর অভিযোগ!
  •   সেলফি তুলতে নয় মৃত্যু ঝুকি, সতর্কতায় লিফলেট বিলি
  •   বেড়াতে এসে গণধর্ষণের শিকার যুবতী!
  •   'সম্মতি ছাড়া কোন নারীকে স্পর্শ করা যাবে না'
  •   স্কুল থেকে বহিষ্কার করায় বাবার পিস্তল দিয়ে অধ্যক্ষকে খুন!
  •   সন্তান নষ্ট করতে ‌কিশোরীকে লাথি, অতঃপর...!
  •   কনের বয়স ৯ বছর আর বরের ৩৯, অতঃপর...!
  •   খরচ বাঁচাতে ৮ জোড়া প্যান্ট ও ১০ জামা পরে বিমানবন্দরে যুবক
  •   প্রথম শৌচাগার ব্যবহার ৯৫ বছর বয়সী বৃদ্ধার
  •   বিয়ের রাতে স্বামীর হাতে ধর্ষণের শিকার নববধূ, এরপর...
  •   মার্কিন সিনেটে মতবিরোধ: ‘অচল হয়ে পড়ার আশঙ্কা সরকারি দপ্তর’
  •   উত্তর কোরিয়ার বিরুদ্ধে যুদ্ধের প্রস্তুতি নিচ্ছে যুক্তরাষ্ট্র!
  •   মা হচ্ছেন নিউজিল্যান্ডের প্রধানমন্ত্রী