মুসলিমদের প্রতি বৈষম্য না করার আহ্বান ওবামার

সিলেটভিউ টুয়েন্টিফোর ডটকম, ২০১৭-০১-১১ ১১:৫২:১০

টানা দুই মেয়াদে যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট থাকার পর এবার বিদায়ের সময় এলো বারাক ওবামার। আর বিদায়ী ভাষণে বিশ্বের নানা সংকট ও বৈষম্য নিয়ে কথা বললেন শান্তিতে নোবেল বিজয়ী এ প্রেসিডেন্ট।

এসময় অভিবাসী প্রসঙ্গে কথা বলতে গিয়ে মুসলিমদের প্রতি কোনো ধরনের বৈষম্যমূলক আচরণ  না করার আহ্বান জানিয়েছেন ওবামা। যুক্তরাষ্ট্রের শিকাগোতে স্থানীয় সময় মঙ্গলবার রাতে এবং বাংলাদেশ সময় বুধবার সকালে দেয়া এক ভাষণে এ আহ্বান জানান তিনি।

এসময় তিনি নিজের আট বছর শাসনামলের সফলতার বিভিন্ন চিত্র তুলে ধরে জলবায়ু পরিবর্তন, অর্থনৈতিক পরিস্থিতি পুনরুদ্ধার, কিউবার সঙ্গে সম্পর্ক পুনঃস্থাপন, জঙ্গিবাদের বিরুদ্ধে লড়াইয়ের বিষয়ে কথা বলেন।

যুক্তরাষ্ট্র আগের চেয়ে অনেক বেশি শক্তিশালী দাবি করে ওবামা বলেন, এবার ধন্যবাদ বলার পালা। আগামীর ইঙ্গিত করে এ মার্কিন প্রেসিডেন্ট বলেন, জলবায়ু পরিবর্তন ইস্যু প্রত্যাখ্যান করা হবে আগামী প্রজন্মের জন্য প্রতারণা।

এছাড়াও বর্ণবাদ প্রসঙ্গে ওবামা বলেন, বর্ণবাদ যুক্তরাষ্ট্রের জন্য এখনো বড় সমস্যা। বর্ণবাদের বিরুদ্ধে সবার আরো অনেক কিছু করার আছে। তবে বিভিন্ন জাতিগোষ্ঠি (অভিবাসী) যুক্তরাষ্ট্রকে সমৃদ্ধ করেছে বলেও উল্লেখ করেন ওবামা।

এসময় নবনির্বাচিত প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের কাছে মসৃণভাবে ক্ষমতা হস্তান্তর করা হবে বলেও জানান বিদায়ী প্রেসিডেন্ট ওবামা। টানা দুইবার নির্বাচিত হয়ে দায়িত্ব পালনের পর আগামী ২০ জানুয়ারি নবনির্বাচিত প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের কাছে ক্ষমতা হস্তান্তর করবেন বারাক ওবামা। আট বছর প্রেসিডেন্ট হিসেবে হোয়াইট হাউজে দায়িত্ব পালনের পর আজ জাতির উদ্দেশে বিদায়ী ভাষণ দেন তিনি। ক্ষমতা হস্তান্তরের আগে এটাই তার শেষ ভাষণ।

প্রচণ্ড শীতের মধ্যে বিদায়ী প্রেসিডেন্টের এ ভাষণ শুনতে কয়েক হাজার মানুষ উপস্থিত হন। ওবামার একনিষ্ঠ ভক্তরা আগে থেকে প্রচণ্ড শীত উপেক্ষা করেও টিকিট সংগ্রহ করেছিলেন।

শিকাগো শহর থেকেই ওবামা ২০০৮ এবং ২০১২ সালের নির্বাচনের বিজয়ী ভাষণ দিয়েছিলেন। আজ সেখানেই তিনি বিদায়ী দিয়েছেন।

বিদায়ী ভাষণ দেয়ার সময় ফার্স্ট লেডি মিশেল ওবামা, ভাইস প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন এবং তার স্ত্রী জিল বাইডেনও সেখানে উপস্থিত ছিলেন। ভাষণ শেষে ওবামা পরিবার ভক্তদের সঙ্গে কুশল বিনিময় করেন।

সংবাদটি পড়া হয়েছে মোট : ৩০৭ বার

শেয়ার করুন

আপনার মতামত দিন

সর্বশেষ খবর

  •   জগন্নাথপুরে নলজুর ব্রীজের মাটি ধস: জন ভোগান্তি চরমে
  •   ‘দেশের উন্নয়নে শেখ হাসিনার বিকল্প নেই’
  •   গ্রেটার জালালাবাদ এসোসিয়েশন সুইডেন শাখার নির্বাচন ৭ জানুয়ারি
  •   'ডাক টাকা' উদ্বোধন করলেন জয়
  •   রংপুর সিটি নির্বাচনে আচরণবিধি লঙ্ঘনের অভিযোগ ফখরুলের
  •   হবিগঞ্জে জঙ্গি তৎপরতার অভিযোগে আটক ৫
  •   শাবিতে যৌন নিযার্তন বিরোধী ক্যাম্পেইন সম্পন্ন
  •   তাহিরপুরে সুদের টাকা পরিশোধ না করায় যুবককে পিটিয়ে হত্যা
  •   শাহ আবদুল করিমকে নিয়ে অনেকে ভুল লিখে: শাহ নূর জালাল
  •   সিলেটে ‘আমার দেশ’ সম্পাদকের বিরুদ্ধে রাহাতের ৫শ’ কোটি টাকার মামলা
  •   ফেঞ্চুগঞ্জ বিদ্যুৎ উপকেন্দ্রে ভয়াবহ অগ্নিকান্ড
  •   শাবির ভর্তি প্রক্রিয়া দেশের সবচেয়ে সুন্দর ও স্বচ্ছ: শাবিপ্রবি ভিসি
  •   সাংবাদিক মহসীনের পিতার মৃত্যুতে বিএনপি,স্বেচ্ছাসেবকদল ও ছাত্রদলের শোক
  •   ফেঞ্চুগঞ্জ মুক্ত দিবস আজ
  •   পতাকা বিক্রি করে গর্বিত ছাতকের ফেরিওয়ালারা
  • সাম্প্রতিক আন্তর্জাতিক খবর

  •   জেরুজালেম নয় আবু দিস হোক ফিলিস্তিনের রাজধানী, সৌদির প্রস্তাব
  •   ট্রাম্পের সিদ্ধান্ত বাতিলের আহ্বান আরব লীগের
  •   জঙ্গি হামলায় সেনা সদস্যের মৃত্যুতে প্রেমিকার আত্মহত্যা!
  •   প্রকৃতিও নিয়ন্ত্রণ করেন কিম!
  •   জেরুজালেম ইস্যুতে একঘরে যুক্তরাষ্ট্র!
  •   প্রাক্তন সুন্দরীকে খুন, ৬০ বছর পর ধর্ম যাজকের সাজা
  •   এই কলগার্লের জন্যই নাকি পদচ্যুত হয়েছিলেন প্রধানমন্ত্রী
  •   মারধরের পর নারীকে নগ্ন করে ঘোরানো হল রাস্তায়!
  •   এবার দাউদ ইব্রাহিমের ব্যবসার দায়িত্বে 'লেডিস গ্যাং'!
  •   লোডশেডিং হলেই জরিমানা
  •   বৈঠক বাতিল না করতে ফিলিস্তিনকে হোয়াইট হাউসের হুঁশিয়ারি
  •   সমকামী বিয়ের বৈধতা দিচ্ছে অস্ট্রেলিয়া
  •   রোহিঙ্গাদের জোর করে ফেরানো উচিৎ হবে না : জাতিসংঘ
  •   প্রতিরোধের আগুনে উত্তাল 'পৃথিবীর বৃহত্তম উন্মুক্ত কারাগার'
  •   ভারতীয় সেই জ্যোতিষীকে নিয়ে উদ্বেগে পাকিস্তান